দূর্গম পাহাড়ে সেনাবাহিনীর ত্রাণ বিতরণ

68

আরিফুল ইসলাম মহিন, পানছড়ি (খাগড়াছড়ি) প্রতিনিধি >>>
মানবিক সেবার অংশ হিসেবে খাগড়াছড়ি জেলার পানছড়ি উপজেলাতে করোনা ভাইরাস নামক মহামারির কারণে অর্থনৈতিকভাবে পিছিয়ে থাকা মানুষদের জন্য নিম্নবিত্ত, গরিব, অসহায় এবং দুস্থ জনগোষ্ঠীদের মাঝে ত্রাণ সামগ্রী বিতরণ করেছে বাংলাদেশ সেনাবাহিনী খাগড়াছড়ি সদর জোন।
আজ সোমবার (২৯ জুন) সকালে প্রদীপপাড়াসহ নীলকারবারীপাড়া, হরিমঙ্গলপাড়া, তালতলা এবং ফাতেমানগর এলাকায় অসহায় দুস্থদের মাঝে এই ত্রাণ বিতরণ করেন খাগড়াছড়ি সদর জোনের জোন কমান্ডার লে. কর্ণেল মাে. জাহিদুল ইসলাম।  এ সময় তিনি করােনা ভাইরাস রােধকল্পে অঘোষিত লকডাউনে থাকা প্রায় ৩৫০টি পরিবারের মাঝে ত্রাণ সামগ্রী তুলে দেন এবং অসহায়দের খোঁজ-খবর নেন ।
এসময় উপস্থিত ছিলেন খাগড়াছড়ি সদর জোনের জোন উপ-অধিনায়ক মেজর চৌধুরী মােহাম্মদ ফাহিম আশরাফী এবং পানছড়ি সাবজোন কমান্ডার ক্যাপ্টেন মো. আহসান হাবীব ।
ত্রাণ বিতরণের সময় জোন কমান্ডার অতি জরুরি প্রয়ােজন না হলে কাউকে বাইরে না আসার জন্য এবং সরকারি সকল বিধি-নিষেধ মেনে চলার জন্য বিশেষভাবে অনুরােধ করেন।  এছাড়াও স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলা, বারবার সাবান দিয়ে হাত ধােয়া এবং মাস্ক ব্যবহারের প্রতি গুরুত্বপূর্ণ নির্দেশনা প্রদান করেন।  তিনি সাংবাদিকদের জানান, খাগড়াছড়ি সদর জোন যেকোনাে দুর্যোগপূর্ণ পরিস্থিতিতে আর্ত-মানবতার সেবায় বেসামরিক প্রশাসনকে তাৎক্ষণিক সহায়তায় সার্বক্ষণিক পাশে ছিল এবং আগামিতেও পাশে থাকবে।  শান্তি , সম্প্রীতি এবং উন্নয়ন- এই মূলমন্ত্রকে সামনে রেখে বাংলাদেশ সেনাবাহিনী পার্বত্য চট্টগ্রামে দীর্ঘদিন যাবৎ অত্যন্ত দক্ষতার সাথে পেশাগত দায়িত্ব পালন করে আসছে।  আর্থ-সামাজিক উন্নয়নের পাশাপাশি শিক্ষা, চিকিৎসাসহ সকল সম্প্রদায়ের মাঝে সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি রক্ষায় সেনাবাহিনীর এমন উদ্যোগ ভবিষ্যতেও অব্যাহত থাকবে।
তিনি আরও বলেন, পাহাড়ের জনগণের জানমাল রক্ষা ও যেকোনো দুর্যোগ মােকাবেলায় বাংলাদেশ সেনাবাহিনী নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছে।  সেই ধারাবাহিকতা বজায় রাখতে বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর প্রতিটি সদস্য সদা তৎপর রয়েছে এবং ভবিষ্যতেও থাকবে।

ডিসি/এসআইকে/এআইএম